১ ঘণ্টা আগের আপডেট রাত ৮:২৯ ; শুক্রবার ; মার্চ ২২, ২০১৯
EN Download App
Youtube google+ twitter facebook
×

ক্রসফায়ারের ভয় দেখিয়ে রাঙ্গাবালী ওসির চাঁদাবাজি!

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট
৯:০২ অপরাহ্ণ, জুলাই ১০, ২০১৮

পটুয়াখালী রাঙ্গাবালী উপজেলায় এক কৃষকে থানায় ডেকে নিয়ে চোখ বেধে রাতভর অমানুষিক নির্যাতন চালায় পুলিশ। পরে তাকে মাদক মামলায় জড়িয়ে ক্রসফায়ারে হত্যার ভয় দেখিয়ে মোটা অংকের উংকোচের বিনিময় ছেড়ে দেয় থানা পুলিশ। এ ঘটনায় গত সোমবার (৯ জুলাই) ওই কৃষকের মেয়ে পটুয়াখালী সরকারী পলিটেকনিক ইনস্টিটিউট ৩য় বর্ষের ছাত্রী লাবনী আক্তার রাঙ্গাবালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিলন মিত্র ও উপ-পরিদর্শক মো. জাকিরের বিরুদ্ধে পুলিশ সুপারের বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

ওই অভিযোগে বলা হয়েছে- রাঙ্গাবালীর পশুরীবুনিয়া এলাকার মৃত নুরুল হকের ছেলে মো. ফজলুল হককে গত ৪জুলাই বিকাল ৫টার সময় খালগোড়া বাজার থেকে রাঙ্গাবালী থানার পুলিশ সদস্য মো. এমদাদুল জোর করে থানায় নিয়ে যায়। পরে থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. জাকির তাকে গারদে ঢুকিয়ে চোখ বেধে রাতভর নির্যাতন করে। এবং বলে তোর আত্মীয় লিপি আক্তারকে এক বৃদ্ধ মহিলার কাছ থেকে জমি দলিল করে নিয়েছি। সেই মহিলার সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধ করো নায় এখন আমাদেরকে ১লাখ ৮৫হাজার টাকা দিবি। এসময় ফজলুল হক টাকা দিতে অস্বীকার করিলে পাশে দাড়ানো থাকা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মিলন মিত্র তার ওপর ক্ষিপ্ত হয়ে তাকে বেত দিয়ে এলোপাতরি ভাবে মারধর করে এবং বলে আজকে রাতের মধ্যে টাকা না দিলে তোকে মাদক মামলায় জরিয়ে ক্রসফায়ার দিয়ে সমুদ্রে ভাইসাইয়া দিব।

পরে ফজলুল হকে পুলিশের নির্যাতন থেকে বাচাঁতে তার ছেলে মো. রাসেদুল ইসলাম আত্মীয় স্বজনের কাছ থেকে অতি কষ্টে টাকা সংগ্রহ করে স্থানীয় মো. বাবুল মীরকে সাথে নিয়ে তার পরের দিন বেলা ২টার সময় থানায় গিয়ে এসআই মো. জাকিরের হাতে ১লাখ ৮৫হাজার টাকা উৎকোচ দিয়ে তার বাবাকে থানা থেকে ছাড়িয়ে নেন।

এ বিষয়ে মোবাইল ফোনে রাঙ্গাবালী থানার এসআই মো. জাকিরের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি নির্যাতন ও ঘুষ বাণিজ্যের কথা অস্বীকার করেন। থানার ওসি মিলন মিত্র জানায় এক বৃদ্ধ মহিলার কাছ থেকে জমি দলিল করে নিয়ে তাকে সম্পূর্ণ টাকা পরিশোধ না করায় আমি ফজলুল হককে থানায় ডেকে নিয়ে আসি পরে তাকে মিমাংসার মাধ্যমে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করি। নির্যাতনের কথা জানতে চাইলে তিনি জানায় টাকা দিতে অস্বীকার করলে তাকে আমি কয়েকটি বেত্রাঘাত করি।

এ বিষয়ে পটুয়াখালী পুলিশ সুপার মো. মইনুল হাসান জানান, তিনি রাঙ্গাবালী থানার ওসি ও এক এসআই বিরুদ্ধে গত ৯জুলাই একটি লিখিত অভিযোগ পেয়েছেন। অভিযোগটি জেলা গোয়েন্দা শাখার (ডিবি) ওসিকে তদন্ত করার নির্দেশ দেয়া হয়েছে। আগামী ৭দিনের মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেওয়ার জন্য বলা হয়েছে। তদন্তে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রমাণ পেলে তাদেরকে অন্যথায় বদলি করা হবে। এমনকি তাদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলাও হতে পারে বলে জানান এসপি।’

পটুয়াখালি

আপনার মতামত লিখুন :

এই বিভাগের অারও সংবাদ




ভুইয়া ভবন (তৃতীয় তলা), ফকির বাড়ি রোড, বরিশাল ৮২০০।
ফোন: ০৪৩১-৬৪৮০৭, মোবাইল: ০১৭১৬-২৭৭৪৯৫
ই-মেইল: barishaltimes@gmail.com, bslhasib@gmail.com
© কপিরাইট বরিশালটাইমস ২০১২-২০১৮
টপ
  বরিশালে সড়কে ট্রাজেডি তদন্তে জেলা প্রশাসনের তদন্ত কমিটি  মায়ের সাথে চলে গেল শিশু তায়িমও  বরিশালে বাস-মাহিন্দ্রা মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহতের সংখ্যা বেড়ে ৭  এবার নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীকেই হত্যার হুমকি!  অল্পের জন্য প্রাণে বাঁচলেন মেনন  লঞ্চ থেকে নদীতে পড়ে যাত্রী নিখোঁজ, ২৪ ঘণ্টায়ও সন্ধান মেলেনি  উজিরপুরে ভোটযুদ্ধে হবে এবার ত্রিমুখী লড়াই  স্বাগত বাংলা ওয়ার্ল্ডওয়াইডে দুই বাংলার যোগ আরও নিবিড় হোক: সালমা ফৈয়াজ  বরিশালে বাস-মাহিন্দ্রা মুখোমুখি সংঘর্ষে তিন নারীসহ নিহত ৬  বরিশাল র‌্যাব গ্রেপ্তার করার ৮ ঘণ্টা পর যুবকের মৃত্যু!