২৫শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার

অনুমতি ছাড়াই হাসপাতালের সরকারি গাছ বিক্রি করলেন চিকিৎসক

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৭:৩৪ অপরাহ্ণ, ২৭ জুলাই ২০২০

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল:: বরিশালের গৌরনদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স চত্বর থেকে গাছ ও হাসপাতালের পুকুরে টিকিট দিয়ে মাছ বিক্রির অভিযোগ পাওয়া গেছে। কোন নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে হাসপাতালের কমপক্ষে ১০টি গাছ বিক্রি করে দেওয়া হয়েছে।

প্রত্যক্ষদর্শী স্থানীয়রা জানান, হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আরএমও) ডা. মাজেদুল ইসলাম কাওসার হাসপাতাল চত্বর থেকে বিভিন্ন সময়ে প্রায় অর্ধ লক্ষাধিক টাকার গাছ বিক্রি করেছেন। এছাড়াও লকডাউনের মধ্যে হাসপাতালের পুকুরে টিকেট দিয়ে মাছ বিক্রি করে দিয়েছেন। তবে এ বিষয়ে জানতে ডাক্তার মাজেদুল ইসলাম কাওসারের ব্যবহৃত মুঠোফোনে একাধিক বার কল করা হলেও তিনি রিসিভ না করায় তার বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

স্থানীয় মঞ্জুর রহমান জানান, ঝড়ের কবলে পড়া তিনটি শিশুকাঠ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডাঃ সাইয়্যোদ মোঃ আমরুল্লাহ ও মেডিকেল অফিসার মাজেদুল ইসলাম কাওছার বিক্রি করবে সংবাদ পেয়ে সাগর নামের স্থানীয় একজনকে সাত হাজার টাকায় ক্রয় করে দেওয়া হয়েছে।

উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ কর্মকর্তা ডা. সাইয়্যেদ মোঃ আমরুল্লাহ বরিশালটাইমসকে জানান, হাসপাতাল থেকে কোন গাছ বিক্রি করা হয়নি। তবে ঝড়ে পড়ে যাওয়া একটি শিশু গাছ কাঁটা হয়েছে। এছাড়াও বজ্রপাতে নষ্ট হওয়া দুইটি গাছ কেটে লাকড়ি বানিয়ে রোগিদের রান্নার কাজে ব্যবহার করা হয়েছে। তবে অন্য গাছগুলো কে কেটে নিয়েছে জানতে চাইলে তিনি কোনো সদুত্তর না দিয়ে উল্টো অভিযুক্ত চিকিৎসকের সাফাই গাইলেন।

উপজেলা বন কর্মকর্তা সাব্বির হোসেন বরিশালটাইমসকে জানান, সরকারি কোন প্রতিষ্ঠান থেকে গাছ বিক্রি করতে হলে সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠান থেকে বন বিভাগকে অবহিত করতে হবে। তারপর বন বিভাগ গাছের মূল্যে নির্ধারণ করে দিলে তা বিক্রির করতে পারবে। গৌরনদী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের গাছ বিক্রির বিষয়টি তাদের অবহিত করা হয়নি বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

বরিশাল জেলা সিভিল সার্জন ডাক্তার মনোয়ার হোসেন বরিশালটাইমসকে জানান, হাসপাতাল থেকে গাছ বা মাছ বিক্রির বিষয়টি আমার জানা নেই। তবে এ বিষয়ে খোঁজখবর নিয়ে সত্যতা পাওয়া গেলে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।

3 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন