১৫ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

আগামী সংসদ নির্বাচনে খালেদা জিয়াকে অংশ নিতে দেয়া যাবে না

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৭:০৭ অপরাহ্ণ, ১৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৭

আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন যথা সময়েই হবে। সেই নির্বাচনে খুনি খালেদা জিয়া অংশ নিতে পারবে না। কারণ খালেদা জিয়া একটা চোর, তিনি নির্বাচনে অংশ নেবে আমরা তা হতে দেব না।

শনিবার বিকেলে বরিশাল নগরীর অশ্বিনী কুমার হলের সামনে জাসদের জনসভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু এসব কথা বলেন।

খালেদা জিয়াকে জঙ্গীর সঙ্গী, দুর্নীতিকারী, মানুষ পুড়িয়ে হত্যাকারী উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন- নির্বাচনের আগেই বিরোধী দলীয় নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বিচার সম্পন্ন হবে। চোর আর খুনিদের নিয়ে নির্বাচন হবে, এটা আমরা হতে দেবো না।

জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দল (জাসদ) জেলা ও নগর কমিটির আয়োজনে এই সমাবেশে তথ্যমন্ত্রী আরও বলেন- দেশে এখন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জঙ্গী দমনের যুদ্ধ চলমান। জঙ্গীরা পিছু হটলেও এখনো আত্মসমাপর্ণ করেনি।

মন্ত্রী আওয়ামী লীগ সরকারের প্রশংসা করে বলেন- বিশ্ব ব্যাংক হাতগুটিয়ে নেয়ার পরও শেখ হাসিনা সরকার পদ্মা সেতু নির্মাণ করছেন। ২০১৯ সালের আগেই পদ্মা সেতুর ওপর দিয়ে গাড়ি চলবে।’

আমি শেখ হাসিনাকে ব্যক্তিগতভাবে চিনি, তিনি  সেই মেয়ে  যিনি চুল বাঁধেন। আবার রান্না করেন। তার নেতৃত্বেই সম্ভব হয়েছে যুদ্ধাপরাধীদের ফাঁসির রায় কার্যকর করা।
প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে আরও বলেন- সরকার খালেদা জিয়াকে কোনভাবে হয়রাণি করছে না। আদালতে মানুষ খুনের হুকুমদাতা আর দুর্নীতি করার জন্য মামলা চলছে।

এসময় উপস্থিত জনতার উদ্দেশ্যে বলেন, আগামী নির্বাচনে আপনারা কি জঙ্গীর সঙ্গী, যুদ্ধপরাধীদের সহায়তাকারী দুর্নীতিবাজ খালেদা জিয়াকে দেখতে চান, নাকি উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে চান সেটা ভাবতে হবে। সংবিধানের বৈধতা অনুযায়ী ২০১৯ সালের জানুয়ারীর মধ্যেই নির্বাচন হবে বলে তথ্যমন্ত্রী উল্লেখ করেন।
বরিশাল মহানগর জাসদের সভাপতি মো. মজিবুল হকের সভাপতিত্বে সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন জাসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-সভাপতি শফিউদ্দিন মোল্লা, যুগ্ম সম্পাদক ওয়াবয়দুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আব্দুল হাই মাহাবুবসহ পটুয়াখালী, পিরোজপুর, ঝালকাঠী জেলা থেকে আসা জাসদের নেতারা।

13 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন