২০শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার

পটুয়াখালিতে ট্রলারে আটকে মা-মেয়েকে গণধর্ষণ

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০১:৪০ পূর্বাহ্ণ, ১৩ জুন ২০১৬

পটুয়াখালী: পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায় এক গৃহবধূ ও তার মেয়েকে গণধর্ষণ করা হয়েছে।  ওই ঘটনায় রোববার (১২ জুন) বিকেলে বাউফল থানায় ৬ জনকে আসামি করে ধর্ষণ মামলা করা হয়েছে।

বাউফল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আযম খান ফারুকী জানান, উপজেলার উত্তর আদাবাড়িয়া গ্রামের এক গৃহবধূ (৩৫) তার মেয়েকে (১৭) নিয়ে শনিবার সকাল সাড়ে ১০টার পাশের গ্রামে বেড়াতে যাচ্ছিলেন।

পথে সোহেল নামে এক যুবক তাদের পৌঁছে দেওয়ার কথা বলে নিজের মোটরসাইকেলে তুলে নেয়। পরে তাদের চোখে-মুখে স্প্রে করলে মা ও মেয়ে জ্ঞান হারিয়ে ফেলেন। এরপর তাদের স্থানীয় কালাইয়ার শৌলা পার্কে নিয়ে যাওয়া হয়।

পরে মা ও মেয়েকে নিমতিঘাট থেকে ট্রলারে করে রাত ১০টার দিকে কেশবপুরের নিশানবাড়িয়া চরে নেওয়া হয়। এ সময় ট্রলারে থাকা ৫ যুবক সোহেলের সহযোগিতায় মা ও মেয়েকে গণধর্ষণ করে।

একপর্যায়ে ওই চরের লোকজন দেখে মেয়েটি চিৎকার করলে ধর্ষকরা দৌঁড়ে পালিয়ে যায়। তবে নুর আলম নামে এক ধর্ষককে আটক করেন স্থানীয়রা। পরে মা ও মেয়েকে তালতলি গ্রামে নিয়ে যাওয়া হয়।

এদিকে, ওই ঘটনায় রোববার বিকেলে ওই গৃহবধূর স্বামী  অজ্ঞাতপরিচয় কয়েকজনসহ ৬ জনকে আসামি করে ধর্ষণ মামলা করেন।

অপরদিকে, আটক ধর্ষক নুর আলমকে গ্রেফতার দেখিয়ে পটুয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল আদালতে পাঠানো হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছে, ভিকটিমদের জবানবন্দি নেওয়ার পর আদালতের মাধ্যমে তাদের ডাক্তারি পরীক্ষা করা হবে।

12 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন