২৪শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার

পটুয়াখালীতে দু’গ্রুপে সংঘাতে রণক্ষেত্র, গুরুতর ৫জন শেবাচিমে

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১১:৫৪ অপরাহ্ণ, ০৭ জুন ২০১৭

পটুয়াখালীর গলাচিপায় আধিপত্য বিস্তার কেন্দ্র করে সংঘাতে আহত হয়ে অন্তত ৫ জন বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। বুধবার (০৭ জুন) সন্ধ্যার দিকে তাদের নিয়ে আসা হয়।

এর আগে বুধবার (০৭ জুন) বেলা ২টার দিকে  পৌর এলাকার ৯ নম্বর ওয়ার্ডের সরকারী ডিগ্রী কলেজ ও হাসপাতাল এলাকায় দুই গ্রুপের পাল্টাপাল্টি সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এতে অন্তত ২০ জন আহত হয়েছেন বলে জানিয়েছে সেখানকার পুলিশ।

গলাচিপায় কর্মরত একাধিক সাংবাদিক বরিশালটাইমসকে জানিয়েছেন- গত কয়েকদিন ধরে পৌরসভার ৯ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর মো. শাহিনের অনুগত সমর্থকদের সঙ্গে বিরোধী গ্রুপের উত্তেজনা চলে আসছে। বুধবার দুপুরের পরে কাউন্সিলর সমর্থক ফিরোজের সঙ্গে প্রতিপক্ষ গ্রুপের সমর্থক শাহাবুদ্দিনের কথা কাটাকাটি হয়।

একপর্যায়ে শাহাবুদ্দিন ফিরোজকে থাপ্পর মারে। এরপরই শুরু হয় উভয় গ্রুপের সংঘর্ষ। কাউন্সিলরের সমর্থকরা লাঠিসোটাসহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে প্রতিপক্ষের সমর্থকদের ওপর ঝাঁপিয়ে পড়লে প্রতিপক্ষরাও প্রতিরোধে এগিয়ে আসে।

সেখানে প্রায় ঘন্টাব্যাপী চলে সংঘর্ষ। সরকারী ডিগ্রী কলেজ ও হাসপাতাল এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। মানুষজন দ্বিগবিদ্বিগ ছোটাছুটি করে। অনেকেই আশেপাশের বাড়িঘরে আশ্রয় নেয়। ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ও দফায় দফায় সংঘর্ষে ইমরান, রুপম, শাহাবুদ্দিন, জাহিদ, রাসেল, শামিম, অভিসহ অন্তত ২০ জন আহত হয়েছে। সংঘর্ষের খবর পেয়ে পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

গলাচিপা থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. জাহিদুল ইসলাম বরিশালটাইমসকে জানান, বর্তমানে পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। ওই এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।’’

7 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন