৮ ঘণ্টা আগের আপডেট সকাল ৬:৩০ ; শনিবার ; মে ২১, ২০২২
EN Download App
Youtube google+ twitter facebook
×

বরিশালের ২২ খাল উদ্ধারে ২শ’ কোটি টাকা

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট
১২:৩৩ পূর্বাহ্ণ, অক্টোবর ৫, ২০১৬

বরিশাল: বরিশালের ২২ মরা খাল দখল মুক্ত, দূষণমুক্ত ও উদ্ধারে তৎপর প্রশাসন। ইতোমধ্যে নগরীর প্রধান খান জেলখাল উদ্ধার করেছে। এবার নগরীর ভেতর দিয়ে বয়ে যাওয়া আরও ২২টি খাল পুনঃউদ্ধারে উদ্যোগী হয়েছেন।

এতে প্রাকৃতিক ভারসাম্য রক্ষা, নৌ পথ ব্যবহারের মাধ্যমে সড়ক পথের চাপ কমানোর পাশাপাশি নগরীর জলাবদ্ধতা দুর হবে। ২২টি খাল চিহিৃত করে আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে সাইনবোর্ড লাগানো হবে। পরবর্তীতে সিএস ম্যাপ অনুযায়ী খালের সীমানা চিহিৃত করার পর খালের মধ্যে থাকা অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে।

মঙ্গলবার (০৪ অক্টোবর) জেলা প্রশাসকের সভাকক্ষে এক সভায় এসব সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।

জেলা প্রশাসন সিটি করপোরেশন, জেলা পরিষদ, পানি উন্নয়ন বোর্ড, বিআইডব্লিউটিএ, এলজিইডি সহ বিভিন্ন সরকারী প্রতিষ্ঠানের উর্ধ্বতন কর্মকর্তা এবং উন্নয়ন সংগঠনের প্রতিনিধিরা সভায় উপস্থিত ছিলেন।

সভার সভাপতি জেলা প্রশাসক ড. গাজী মোঃ সাইফুজ্জমান জানান, একসময় বরিশালের পারিচিতি ছিল নদী-খালের শহর হিসাবে। অব্যবস্থানা ও নজরদারীর অভাবে দখল ও দুষণে নগরীর ভেতর দিয়ে বয়ে যাওয়া খালগুলো হারিয়ে যেতে বসেছে। সম্প্রতি জেলখাল দখলমুক্ত করতে জনগনের স্বতম্ফুর্ত সমর্থন ও সফলতা অর্জন করায় সরকারের উচ্চমহলে ব্যাপক প্রসংশিত হয়েছে।

তাই খাল পুনঃউদ্ধার ও সংস্কার করে হারানো ঐতিহ্য ফিরিয়ে আনতে কমপক্ষে ২০০ কোটি টাকার একটি প্রকল্প নেওয়া হচ্ছে। নগরীর সবগুলো খাল এ প্রকল্পের আওতায় আনা হবে। এ লক্ষ্যে গতকাল সংশ্লিষ্টদের নিয়ে সভা করা হয়েছে। সভায় নগরের ভেতর দিয়ে বয়ে যাওয়া ২২টি খাল চিহিৃত করার জন্য অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক আহসান হাবীবকে (রাজস্ব) প্রধান করে একটি কমিটি গঠন করা হয়।

বরিশাল নগরীর ২২টি খাল হচ্ছে নগরীর ১, ২, ৭, ৮, ৯, ১৯ ও ২০ নং ওয়ার্ডের জেল খাল। যা কীর্তনখোলা নদীর তীর থেকে নতুল্লাবাদ পযর্ন্ত বিস্তৃত। ১২, ১৪, ২৩, ২৪ ও ২৫ নং ওয়ার্ডের সাগরদী খাল। যা কীর্তনখোলা নদীর তীর থেকে চৌমাথার ব্রিজ পর্যন্ত বিস্তৃত। নগরীর ১, ৩ ও ২৯ নং ওয়ার্ডের লাকুটিয়া খাল। যা মরকখোলা পোল থেকে আবেদ আলী শাহ মাজার পর্যন্ত বিস্তৃত। নগরীর ৫ ও ৬ নং ওয়ার্ডের আমানতগঞ্জ খাল। যা কীর্তনখোলা নদীর তীর থেকে মহাবাজ পযর্ন্ত বিস্তৃত।

নগরীর ১২, ১৩ ও ১৪ নং ওয়ার্ডের নাপিতখালী খাল। যা মেডিকেলের পিছনের বাউন্ডারী থেকে সাগরদীখাল পযর্ন্ত বিস্তৃত। কীর্তনখোলা নদী হতে সার্কেট হাউসের পাশদিয়ে সদর রোড-বিবির পুকুর পযর্ন্ত বিস্তৃত ১০, ১৬ নং ওয়ার্ডের ভাটার খাল। ১৬, ২৬ ও ২৭ নং ওয়ার্ডের ভাড়ানী খাল। কীর্তনখোলা নদীর তীর থেকে ব্যাপ্টিস্ট মিশন রোড পর্যন্ত বিস্তৃত ৯, ২৩, ২৫ ও ২৬ নং ওয়ার্ডের চাঁদমারী খাল। বরিশাল বানারীপাড়া রোড হতে কুদঘাটা পর্যন্ত ২৭ নং ওয়ার্ডের ভেদুরিয়া খাল। ২৯ ও ৩০ নং ওয়ার্ডে ইছাকাঠী উঃ কড়াঁপুর রাস্তা সংলগ্ন খাল।

সিএন্ডবি রোড থেকে ভেদুরিয়া খাল পযর্ন্ত ৩০ নং ওর্য়াডের কলাডেমা খাল। চৌমাথা থেকে ভাংগার পোল পযর্ন্ত ২২, ২৩ ও ২৭ নং ওয়ার্ডের নবগ্রাম খাল। সোনা মিয়ার পোল থেকে কালিজিরা নদী পযর্ন্ত ২৬ নং ওয়ার্ডের হরিনাফুলিয়া খাল। ৯, ২৩, ২৫ ও ২৬ নং ওয়ার্ডের পুডিয়া খাল। পুরানপাড়া রাস্তা থেকে মহাবাজ পযর্ন্ত ৩ ও ৪ নং ওয়ার্ডের সাপানিয়া খাল।

শেরে বাংলা সড়ক থেকে ঠাকুর বাড়ী পযর্ন্ত ৪ নং ওয়ার্ডের জাগুয়া খাল। নতুল্লাবাদ ব্রীজ থেকে নবগ্রাম পযর্ন্ত উঃ নবগ্রাম সাগরদী খাল। কাশিপুর স্কুল থেকে ভেদুরিয়া খাল পযর্ন্ত কাশিপুর খাল। ঠাকুরবাড়ী থেকে দরগাহ বাড়ী পযর্ন্ত টিয়াখালী খাল। নতুন হাট থেকে বিশ্বাস বাড়ী পযর্ন্ত ঝোড়াখালি খাল। ভেদুরিয়া খাল থেকে ডেইরি ফার্ম পযর্ন্ত সোলনা খাল।

বরিশালের নদী-খাল রক্ষার জন্য দীর্ঘদিন ধরে আন্দোলন করছে বরিশাল নদী-খাল রক্ষা কমিটি। এ সংগঠনের সদস্য সচিব কাজী এনায়েত হোসেন শিপলু বলেন, বরিশাল নগরীরের ভেতর মোট খাল ছিল ২৩টি। এরমধ্যে অনেকগুলো ভরাট করে সড়ক করায় ওই খালগুলোর অস্তিত্ব বিলীন হয়ে গেছে। তাই ২২টি খাল চিহিৃত করার জন্য অতিরিক্ত জেলা প্রশাসককে আহ্বায়ক ও সিটি করপোরেশণের নির্বাহী প্রকৌশলী আনিসুজ্জামানকে সদস্য সচিব করে কমিটি গঠন করা হয়। তারা আগামী ৭দিনের মধ্যে সবগুলো খাল চিহিৃত করার পর সেখানে সাইনবোর্ড লাগানো হবে।

শিপলু জানান, অপরিকল্পিতভাবে রাস্তা ও কালভার্ট করায় অনেক খাল বিলীন হয়েছে। যার মধ্যে উল্লেখযোগ্য হলো ভাটার খাল ও সাগরদি খালের নবগ্রাম অংশ (বটতলা বাজার থেকে সরকারি সৈয়দ হাতেম আলী কলেজ পর্যন্ত)।

সভায় সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে, ভবিষ্যতে জেলা পরিষদ ও সিটি করপোরেশনসহ যেকোন সরকারি দপ্তর খালের ওপর উন্নয়ন কাজ করতে হলে অবশ্যই জেলা প্রশাসককে অবহিত করতে হবে।

জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সভায় উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা গোলাম মোস্তফা, সিটি করপোরেশণের নির্বাহী প্রকৌশলী আনিসুজ্জামান, বিআইডব্লিউটিএ’র সহকারী পরিচালক শহিদুল ইসলাম, পরিবেশ অধিদপ্তরের বিভাগীয় পরিচালক নজরুল ইসলাম প্রমুখ।

খবর বিজ্ঞপ্তি, বরিশালের খবর

 

আপনার মতামত লিখুন :

 
এই বিভাগের অারও সংবাদ
ভারপ্রাপ্ত-সম্পাদকঃ শাকিব বিপ্লব
© কপিরাইট বরিশালটাইমস ২০১২-২০১৮ | বরিশালটাইমস.কম
বরিশালটাইমস মিডিয়া লিমিটেডের একটি প্রতিষ্ঠান।
ইসরাফিল ভিলা (তৃতীয় তলা), ফলপট্টি রোড, বরিশাল ৮২০০।
ফোন: +৮৮০২৪৭৮৮৩০৫৪৫, মোবাইল: ০১৮৭৬৮৩৪৭৫৪
ই-মেইল: [email protected], [email protected]
© কপিরাইট বরিশালটাইমস ২০১২-২০১৮
টপ
  বরিশালবাসীর স্বপ্নের পদ্মা সেতু উদ্বোধন জুনের শেষ সপ্তাহে  মেঘনা নদীতে ট্রলারডুবি: ৮ জেলেকে উদ্ধার করল কোস্টগার্ড  বরিশালসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে মাঝারি থেকে ভারী বর্ষণের পূর্বাভাস  বরিশালে নৌকাডু‌বিতে নিখোঁজ জেলের লাশ উদ্ধার  বরিশালে নিউনেস স্কুলে অভিভাবক সমাবেশ ও পুরস্কার বিতরণী  আওয়ামী লীগ আবারও ক্ষমতায় আসবে: ঝালকাঠিতে আমু  ঝালকাঠিতে পাবজি গেমস খেলতে না দেওয়ায় প্রবাসীর স্ত্রীর আত্মহত্যা  নলছিটিতে ২০ বস্তা আটা নিয়ে লঙ্কাকাণ্ড!  বিয়ের ২৬ দিনের মাথায় গৃহবধূর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার  পদ্মা নদীতে ধানবোঝাই ট্রলার ডুবি: ২ শ্রমিক নিখোঁজ