১৯শে জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, শুক্রবার

বরিশালে এইচএসসি পরীক্ষার্থীকে কুপিয়েছে ছাত্রলীগ, জানে না পুলিশ

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১০:৫১ পূর্বাহ্ণ, ২৯ এপ্রিল ২০১৭

বরিশালের মেহেন্দিগঞ্জ উপজেলায় দলীয় দ্বন্দ্বের জেরে মাজাহারুল ইসলাম (১৮) নামে এক এইচএসসি পরীক্ষার্থীকে কুপিয়ে জখম করেছে উপজেলা ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা।

আহত মাজাহারুলকে বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল (শেবাচিম) হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এই হামলা চালিয়েছেন উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক শাকিলের অনুসারীরা।

শনিবার (২৯ এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৯টায় পৌর এলাকার ঈদগাহ মাঠের সামনে এই হামলার ঘটনা ঘটে।

হামলার কারনে শিক্ষাজীবন থেকে একটি বছর ঝরে গেছে শিক্ষার্থী মাজাহারুলের।

কিন্তু বিষ্ময়কর বিষয় হচ্ছে- পৌর এলাকায় এ রকমের একটি ঘটনা ঘটলেও পুলিশ মোটেও অবহিত নয়। এমনকি কেউ পুলিশের কাছে কোন অভিযোগও করেনি বলে দাবি করছে পুলিশ।

আহত মাজাহারুল জানান- কয়েক দিন আগে পারভেজ চাঁনকে সভাপতি করে উপজেলা যুবদলের কমিটি গঠন করা হয়। জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও উপজেলা আ. লীগের সভাপতি মঈদুল ইসলাম গত ২৭ এপ্রিল মেহেন্দিগঞ্জে আসলে তাকে ফুলের শুভেচ্ছা জানায় নবগঠিত যুবলীগের নেতাকর্মীরা।

ওই শুভেচ্ছা প্রদান অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকায় মাজাহারুলের ওপর ক্ষুব্ধ হয় ছাত্রলীগ সম্পাদক শাকিল অনুসারীরা।

এই শাকিল স্থানীয় সংসদ সদস্য পংকজ নাথের সমর্থক হিসেবে পরিচিত।

শনিবার মাজাহারুলের এইচএসসি অর্থনীতি দ্বিতীয়পত্রের পরীক্ষা ছিলো মহিলা মহাবিদ্যালয় কেন্দ্রে। পরীক্ষার জন্য সকাল ৯টায় সে বাসা থেকে বের হয়।

পথিমধ্যে পৌর এলাকার ঈদগাহ মাঠের সামনে পৌঁছলে উপজেলা ছাত্রলীগ সম্পাদক শাকিলের ক্যাডার বাহিনী মাজাহারুলের ওপর হামলা চালায়। তারা ধারালো অস্ত্র দিয়ে মাজাহারুলকে উপর্যপুরি কুপিয়ে জখম করে।

স্থানীয়রা আহত অবস্থায় মাজাহারুলকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে উন্নত চিকিৎসার জন্য শের-ই বাংলা হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।’

মেহেন্দিগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আক্তারুজ্জামান জানান- তার কাছে এ ধরনের হামলার কোন খবর নেই। কারো পক্ষ থেকে লিখিত অভিযোগ পাওয়া যায়নি।

এমনকি মৌখিকভাবেও তাকে কেউ অবহিত করেনি। তবে অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’’

9 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন