২২শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

বরিশালে চোর ধরতে গিয়ে হামলার শিকার পুলিশ কর্মকর্তা

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০২:৫৯ অপরাহ্ণ, ২০ এপ্রিল ২০২৪

সঞ্জীব সিংহ, বরিশাল:: বরিশাল নগরীতে চোর ধরতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন শফিকুল ইসলাম নামে এসআই পদমর্যাদার এক পুলিশ কর্মকর্তা, যিনি কী না কোতয়ালি থানাধীন বগুড়া ফাঁড়ি পুলিশের ইনচার্জ। শুক্রবার রাতে শহরের ১৯ নং ওয়ার্ডের ঝাউতলা তৃতীয় গলিতে চুরি মামলার আসামি আরিফুর রহমান (২২) অবস্থান করছেন এমন খবর পেয়ে সেখানে এই পুলিশ কর্মকর্তা সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে হানা দেন। এবং একপর্যায়ে পুলিশ সদস্যরা চোরকে চারদিক থেকে ঘিরে ফেলেন, তখন পুলিশ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলামকে কাঁচি দিয়ে কুপিয়ে জখম করে পালিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে ব্যর্থ হয়। এই অভিযানে কোতয়ালি মডেল থানা পুলিশের এসআই বিজয় মন্ডলও অংশ নেন।

পুলিশ জানায়, নতুন বাজার গাজী ভবনের নিচ থেকে সুষান্ত দাস (২২) নামের এক যুবকের একটি বাইসাইকেল গত ১৭ এপ্রিল চুরি হয়। এই ঘটনায় সিসি ক্যামেরা ফুটেজ দেখে দুই আসামিকে শনাক্ত করার পাশাপাশি কোতয়ালি মডেল থানায় একটি চুরি মামলা করেন যুবকের বাবা নিখিল চন্দ্র। সেই মামলার ১ নং আসামি শাওনকে শুক্রবার রাত ৯টার দিকে পার্শ্ববর্তী গুপ্তকর্ণার এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। এবং তার দেওয়া স্বীকারোক্তিতে ১৯ নং ওয়ার্ডের ঝাউতলা তৃতীয় গলিতে অভিযান চালিয়ে ২ নং অভিযুক্ত আরিফুর রহমান নিপুকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তবে তিনি এর আগে ধস্তাধস্তির একপার্যায়ে পুলিশ কর্মকর্তা শফিকুল ইসলামকে কাঁচি দিয়ে আঘাত করেন। এতে পুলিশ কর্মকর্তার ডান হাতে আঘাতপ্রাপ্ত হন, পরে তিনি চিকিৎসা নেন।

এর আগে চোরাই বাইসাইকেলটি সদর উপজেলার চরবাড়িয়া থেকে উদ্ধার করে ফাঁড়ি পুলিশ।

ওই অভিযানে অংশ নেওয়া অপর পুলিশ কর্মকর্তা এএসআই জামাল বরিশালটাইমসকে জানান, আরিফুর রহমান নিপু এবং শাওন মিলে বাইসাইকেলটি চুরি করেছে, তা সিসি ক্যামেরা পর্যালোচনা করে দেখা গেছে। পরবর্তীতে গতকাল শুক্রবার মামলার প্রেক্ষাপটে তাদের দুজনকে গ্রেপ্তারে উদ্যোগ নেয় ফাঁড়ি পুলিশ। শাওনকে গুপ্তকর্ণার এলাকা থেকে সহজে গ্রেপ্তার করা গেলেও নিপুকে ধরতে বেগ পেতে হয়েছে। তাকে গ্রেপ্তার করতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন ইনচার্জ শফিকুল ইসলাম।’

308 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন