২৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

বরিশালে ছেলের আত্মহত্যার খবরে পিতার বিষপান, কিন্তু…

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১০:১০ অপরাহ্ণ, ০৩ জানুয়ারি ২০১৮

একখণ্ড জমি কাল হলো বাবা-ছেলের। নিরক্ষর বাবা-ছেলের সঙ্গে প্রতারণা করে তাদের জমি অনেক আগে কেড়ে নিয়েছেন এক নিকট আত্মীয়। এ নিয়ে মামলা চলছে বহু বছর ধরে।

এ অবস্থায় প্রতারক ওই আত্মীয় বুধবার (০৩ জানুয়ারি) দুপুরে বাবা-ছেলেকে ভিটেছাড়া করার হুমকি দিয়ে গালিগালাজ করে। এমন অপমান সইতে না পেরে ছেলে বিপ্লব দাস (৩৫) প্রথমে বিষপান ও পরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

ছেলের মৃত্যুশোক সইতে না পেরে বাবা বিমল দাসও (৬০) বিষপানে আত্মহত্যার চেষ্টা চালিয়ে এখন বরিশাল শেরেবাংলা চিকিৎসা মহাবিদ্যালয় হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

ঘটনাটি বরিশালের উজিরপুর পৌর শহরের ৬ নম্বর ওয়ার্ডে। দুপুরে এ ঘটনার পরপরই পুলিশ অভিযান চালিয়ে বিমল দাসের দুই ভাগ্নে সঞ্জয় দাস ও সমীর দাসকে আটক করেছে।

স্থানীয়রা জানায়, কৃষক বিমল দাস ও তার ছেলে বিপ্লব দাস নিজেদের জমিতে পান চাষ করে জীবিকা নির্বাহ করেন। প্রতারণা করে কয়েক বছর আগে তাদের জমি লিখে নেন বিমল দাসের ভাগ্নে সঞ্জয় দাস ও সমীর দাস।

বুধবার (০৩ জানুয়ারি) দুপুরে দুই পরিবারের মধ্যে ঝগড়ার একপর্যায়ে সঞ্জয় দাস ও সমীর দাস তাদের মামা বিমল দাসকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ ও তাদের বাড়ি থেকে তাড়িয়ে দেয়ার হুমকি দেয়।

এ নিয়ে ক্ষোভে বিমল দাসের ছেলে বিপ্লব দাস প্রথমে ঘরে রাখা বিষপান করে এবং পরে বাড়ির অদূরে একটি গাছের সঙ্গে গলায় ফাঁস দেয়। তাকে উদ্ধার করে উজিরপুর হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক বিপ্লবকে মৃত ঘোষণা করেন। ছেলের মৃত্যুর খবর পেয়ে বাবা বিমল দাসও ঘরে রাখা কীটনাশক পান করে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়।

উজিরপুর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) গোলাম সরোয়ার বরিশালাইমসকে জানান, বিষয়টি অমানবিক। ঘটনার পর ওই এলাকায় অভিযান চালিয়ে সঞ্জয় ও সমীর নামে দুইজনকে আটক করা হয়েছে। এ নিয়ে মামলা দায়েরের প্রক্রিয়া চলছে।’

12 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন