২৮শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

বরিশালে শিশু শ্যালিকাকে হত্যা ও স্ত্রীকে কুপিয়ে স্বামীর আত্মহত্যা

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০১:১৯ অপরাহ্ণ, ২৮ জুলাই ২০১৭

ছয় বছরের শিশু শ্যালিকাকে জবাই করে হত্যার এবং স্ত্রীকে কুপিয়ে জখমের পর গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছেন সজিব মৃধা (২৫) নামে এক ব্যক্তি। বরিশাল নগরীর পুরানপাড়া এলাকায় বৃহস্পতিবার মধ্যরাত থেকে বৃহস্পতিবার (২৭ জুলাই) ভোর রাতে এই হত্যার ঘটনা ঘটে।

পেশায় ভ্যানচালক সজিব মৃধা উজিরপুর উপজেলার ধামুরা গ্রামের শফিজউদ্দিন মৃধার ছেলে।

নিহত শিশু সাদিয়া (৬) মা এবং ভ্যান চালক সজীবের শ্বাশুড়ী পারুল বেগম (৪০) বলেন, তার স্বামী সিদ্দিক সিকদারের গ্রামের বাড়িও সজীবদের বাড়ির পাশের বাড়িতে। স্বামী মারা যাওয়ার পর দুই কন্যা সুমাইয়া ও সাদিয়াকে নিয়ে বরিশালে ভাড়া থেকে টেক্সটাইল মিলে চাকুরী করেন। দুই বছর আগে ভ্যানচালক সজীব বড় কন্যা সুমাইয়ে জোর করে বাড়ি নিয়ে বিয়ে করে।

তবে শ্বাশুড়ী সখিনা বেগম জ্বালাতন করায় সুমাইয়া বরিশালে তার কাছে আসে এবং টেক্সাইল মিলে চাকুরী নেয়। তিনি ছয় মাসাধিক সময় হলো পুরানপাড়া মহম্মদ আলী খানের বাসা ভাড়া নেন। আট দিন আগে তারা জামাতা সজীব বেড়াতে আসেন। বৃহস্পতিবার (২৭ জুলাই) মোবাইলে বাড়িতে তার মায়ের সাথে এক হাজার টাকা চেয়ে ঝগড়া করেছে। রাতে তার ছোট কন্যা সাদিয়াকে নিয়ে মাছ ধরে আনে।

এরপর ফের রাত তখন ১টা বড় কন্যা সুমাইয়াকেও নিয়ে যায় মাছ ধরার জন্য। রাত তিনটা পর্যন্ত অপেক্ষা করে জামাতা ও দুই কন্যা ফিরে না আসায় চিন্তায় পড়েন। এরপর খুঁজতে বের হয়ে নথুল্লাবাদ তার স্বজনের বাড়িতে পর্যন্ত যান। সকালে ফিরে পাশের বাড়ির চালতাগাছে জামাতা সজীবের গলায় রশি দিয়ে ফাঁসি দেয়া ঝুলন্ত লাশ দেখতে পান। আর গাছের গোড়াতেই সুমাইয়াকে আহত অবস্থায় পাওয়া যায়।

ছোট মেয়ে সাদিয়ার সন্ধান করে পাশের একটি ডোবায় গলা কাটা অবস্থায় লাশ পাওয়া যায়। পারুল বেগম আরও বলেন, তার মেয়ে ও জামাতার মধ্যে কোন ঝগড়া বা কথা কাটাকাটিও হয়নি। তাই হত্যার নেপথ্যের কারণ তিনি বলতে পারেন না।

কাউনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. নুরুল ইসলাম বলেন, শুক্রবার সকালে ঘটনাস্থলে গিয়ে দুটি মৃতদেহ উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। আহত সুমাইয়ার গলায় ও মাথায় হত্যার উদ্দেশে আঘাত রয়েছে।

বাড়ি থেকে আধা কিলোমিটার দূরত্বে ইট দিয়ে মুখে আঘাত করায় তিনটি দাঁত পাওয়া গেছে। সুমাইয়াকে শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আর লাশের সুরতহাল প্রতিবেদনের পর দুপুুর ১২টায় শেবাচিম হাসপাতাল মর্গে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। এঘটনায় একটি অপমৃত্যু ও একটি হত্যা মামলা দায়ের করার প্রস্তুতি চলছে বলে জানিয়েছেন ওসি।”

 

10 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন