১৩ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, শনিবার

বরিশালে হ্যান্ডক্যাপ নিয়ে পালিয়ে যাওয়া সেই আসামি গ্রেফতার

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১১:৫৯ অপরাহ্ণ, ১৯ মার্চ ২০১৭

পুলিশকে মারধর করে হ্যান্ডক্যাপ পরিহিত অবস্থায় আসামি ছিনিয়ে নেয়ার অভিযোগে ২৯ জনকে অভিযুক্ত করে থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। গত ১৪ মার্চ বরিশালের কোতয়ালি মডেল থানায় মামলাটি দায়ের করে ঢাকার কদমতলী থানার সহকারি উপ-পরিদর্শক (এএসআই) মো. ইসমাইল হোসেন।

অভিযুক্তরা হলেন- বরিশাল সদর উপজেলার চরমোনাই ইউনিয়নের রাজারচর এলাকার জালালউদ্দিন গাজীর পুত্র মো. আরিফিন গাজী ওরফে ইমরান গাজী তার ভাই মো. মাইদুল ইসলাম বোন ফুল ও তার একবোন নিপা বেগম. মৃত মোহন গাজীর পুত্র মো. জালাল উদ্দিন গাজী তার স্ত্রী জৌসনয়ারা বেগম, মো. ফজলু গাজীর পুত্র মো. ইভান গাজী, মো. জালাল উদ্দিন গাজীর জামাতা মো. আজাদ, মৃত রব গাজীর পুত্র মো. আজাদসহ অজ্ঞাতনামা ২০ জন।’’

এজাহার সূত্রে জানা যায়, গত ১০ মার্চ কদমতলী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে একটি অপহরণ মামলা করেন ঢাকার নুরপুর ধনিয়া এলাকার একেএম বাহানুল (মামলা নং-৭৯৪) সেই মামলায় তিনি অভিযোগ করেন যে তার কণ্যা রুম্মান মাইশা (১৫) কে বরিশালের চরমোনাই বাজার চর এলাকার জালাল উদ্দিন গাজীর পুত্র মো. আরিফিন গাজী তাকে অপহরণ করে নিয়ে গেছে।’’

সেই মামলার অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার কদমতলী থানার এএসআই মো. ইসমাইলসহ ৩ জন পুলিশ সদস্য বরিশালের কোতয়ালি মডেল থানা পুলিশের সহায়তায় মো. আরিফিন গাজীকে আটক করতে ১৩ মার্চ রাজারচর এলাকায় অভিযান চালায়।

এসময় তারা ভিকটিম রুম্মান মাইশাকে উদ্ধার করে। পরে মো. আরিফিন গাজীকে আটক করে হ্যান্ডিক্যাপ পরালে তার আত্মীয়স্বজনসহ প্রায় ২০ থেকে ৩০ জন স্থানীয়রা পুলিশের উপর হামলা চালিয়ে মো. আরিফিন গাজীকে পালাতে সহায়তা করে।

এ ঘটনায় রোববার কোতয়ালি মডেল থানার পুলিশ অভিযুক্ত রেদোয়ান গাজীকে আটক করে অতিরিক্ত চিফ মেট্রোপলিটন চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে হাজির করলে আদালতের বিচারক অমিত কুমার দে তাকে তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করার আদেশ দেন।’’

11 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন