২৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

বাউফলে ভিজিএফ চাল কম দেওয়ার প্রতিবাদ করায় মেম্বারকে মারধর

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৬:১৮ অপরাহ্ণ, ১১ মে ২০২১

বাউফলে ভিজিএফ চাল কম দেওয়ার প্রতিবাদ করায় মেম্বারকে মারধর

মো. জসীম উদ্দিন, বাউফল >> পটুয়াখালীর বাউফলের ধুলিয়া ইউনিয়নর জেলেদের মাঝে ভিজিএফ চাল পরিমানে কম দেয়ার প্রতিবাদ করলে  ৪নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি মেম্বার মো. শামিম খাঁনকে ইউপি চেয়ারম্যান মো.আনিচুর রহমান ওরফে রর মারধর করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
মঙ্গলবার সকাল সাড়ে দশটার দিকে ধুলিয়া ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে মৎস্যজীবি জেলেদের মাঝে ভিজিএফ কর্মসূচির চাল বিতরণ কালে এমন ঘটনা ঘটে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানা, ধুলিয়া ইউনিয়নের ৪নম্বর ওয়ার্ডের ২৪০জন উপকারভোগী জেলের জন্য ৯.৪০০ মেট্রিকটন চাল বরাদ্ধ হয়। কিন্তু চেয়ারম্যান আনিচুর রহমান ওরফে রব ৪নম্বর ওয়ার্ডের ইউপি মেম্বার শামিম খাঁনে ৬.২৫০ মেট্রিকটন (১২৫ বস্তা) চাল বিতরণ করতে বলেন। ৩.১৫০ মেট্রিকটন চাল কম বিতরনে আপত্তি দেন। এতে চেয়ারম্যান ক্ষিপ্ত হয়ে ওই মেম্বারকে মারধর করেন।

ঘটনার প্রত্যক্ষদর্শী,৪নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামীলীগ সভাপতি মোঃ ইউনুস খান বলেন,‘ চেয়ারম্যান চাল কম দিতে চাইলে শামিম মেম্বার আপত্তি জানায়। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে মেম্বার শামিমকে চেয়ারম্যান ও তার ছেলে মান্না মারধর করেন।

মেম্বার শামিম খাঁন বলেন, ‘চেয়ারম্যান বরাদ্ধকৃত চালের প্রায় ৩ মেট্রিকটন চাল আত্মসাতের চেষ্টা করেন। এতে আমি আপত্তি জানালে আমাকে তিনি (চেয়ারম্যান) ও তার ছেলে মান্না মরধর করেন।

মারধর করার অভিযোগ অস্বীকার করে ধুলিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আনিচুর রহমান ওরফে রব বলেন, ‘ শামিম মেম্বার জেলেদের চাল অন্যত্র নিয়ে বিতরণের প্রস্তাব করেন। আমি তাকে ইউনিয়ন পরিষদে চাল বিতরণ করতে বলি। সে রাজি না হওয়ায় চাল বিতরণ বন্ধ রয়েছে।’

এবিষয়ে বাউফল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (তদন্ত) মোঃআল মামুন বলেন, ‘ চাল বিতরণে বিশৃঙ্খলার সংবাদ পেয়ে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে।

এবিষয়ে ধুলিয়া ইউনিয়নের ট্যাগ অফিসার ও উপজেলা সমবায় অফিসার মো. ইয়াকুব আলীর কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘মেম্বারকে মারধরের বিষয়ে কিছু জানি না। ৪ নম্বর ওয়ার্ডে চাল বিতরণ বন্ধ ছিল। পরে ইউএনও স্যারের নির্দেশে চারজন জেলের মাঝে চাল বিতরণ করা হয়। বাকি চাল আগামীকাল বিতরণ করা হবে।’

12 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন