২২শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

মহিপুর ওসি’র অপকর্ম ঢাকতেই চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৫:২১ অপরাহ্ণ, ২৭ জুলাই ২০২০

বার্তা পরিবেশক কুয়াকাটা:: মহিপুর থানার ওসি নিজের অপকর্ম আড়াল করতে সুকৌশলে লতাচাপলী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালাচ্ছে এমন অভিযোগ এনে সংবাদ সম্মেলন করেছে লতাচাপলী ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যরা।

মহিপুর থানার লতাচাপলী ইউপি চেয়ারম্যানের পক্ষে সোমবার (২৭ জুলাই) সকাল ১১টায় কুয়াকাটা প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন লতাচাপলী ইউনিয়ন পরিষদের ইউপি মো.জাফর উদ্দিন কুতুব। সম্প্রতি বরিশালের কয়েকটি আঞ্চলিক দৈনিকে প্রকাশিত সংবাদের জন্য ওসিকে দায়ি করে ওই ইউনিয়ন পরিষদের সদস্যরা এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করেন।

ইউপি সদস্য মো.জাফর উদ্দিন কুতুব তার লিখিত বক্তব্যে বলেন, লতাচাপলী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ আনছার উদ্দিন মোল্লাকে জড়িয়ে মহিপুর থানার ওসির ইন্দনে যেসব কথা পত্রিকায় প্রকাশিত হয়েছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যা ও ভিত্তিহীন। তার জনপ্রিয়তায় ঈর্ষান্বিত হয়ে একটি মহলের ইশারায় ওসি সংবাদকর্মীদের ভুল তথ্য দিয়ে উক্ত সংবাদ প্রকাশ করিয়েছে। চেয়ারম্যান মোঃ আনছার উদ্দিন মোল্লা করোনা আক্রান্ত, প্রকাশিত সংবাদে চেয়ারম্যানের কোন বক্তব্য নেওয়া হয়নি। চাঁদাবাজী, মাসোয়ারা আদায়, ভূমি দস্যুতা, টাকার বিনিময়ে ধর্ষণের ঘটনা ধামাচাপা দেওয়া, মাদক সিন্ডিকেট পরিচালনা এবং সালিশ বাণিজ্যের কথা বলা হলেও যার পুরোটাই মিথ্যা। বরং চেয়ারম্যান ইউপি সদস্যদের উপস্থিতিতে গ্রাম আদালতের নিয়ম অনুযায়ী শালিস বোর্ডের মাধ্যমে সালিশ মিমাংসা করে থাকেন।

লিখিত বক্তব্যে ইউপি সদস্য কুতুব বলেন, কুয়াকাটা খানাবাদ কলেজের প্রতিষ্ঠাতা আলহাজ্ব জহিরুল ইসলাম খান উদ্দেশ্যমূলক চেয়াম্যানের বিরুদ্ধে প্রকাশিত ওই সংবাদে মানহানিকর বক্তব্য দিয়েছেন। তার জমি নিয়ে মূলত রাখাইনদের সাথে আদালতে মামলা চলমান, যা আদালতের নিস্পত্তির বিষয়। সেখানে চেয়ারম্যানের কোন সম্পৃক্ততা নেই। এছাড়া চেয়ারম্যানকে নিয়ে মহিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামানের ভাষ্যে শালিস বাণিজ্যের কথা বলা হলেও তা সত্য নয়। মূলত ওসির অন্যায় অপকর্ম আড়াল করতে সুকৌশলে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে অপপ্রচার চালানো হচ্ছে বলে ইউপি সদস্য জাফর উদ্দিন কুতুব দাবি করেছেন।

কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সিনিয়র সহ-সভাপতি আলহাজ্ব কুদ্দুস মাহমুদের সভাপতিত্বে ওই সংবাদ সম্মেলনে লতাচাপলী ইউনিয়ন পরিষদের সকল ইউপি সদস্য-সদস্যা এবং কুয়াকাটা প্রেসক্লাবের সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

3 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন