২৯শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

শেবাচিম কলেজকে বিশ্ববিদ্যালয় করার আশ্বাস হাসানাতের

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ১০:২৫ অপরাহ্ণ, ০৫ জুলাই ২০১৭

বরিশালের শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেজকে বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরীত করার জন্য জাতীয় সংসদে প্রস্তাব রাখার আশ্বাস দিলেন স্থানীয় ৪ সাংসদ। বুধবার (০৫ জুলাই) দিনভর শেবাচিমের কনফারেন্স রুমে অনুষ্ঠিত স্বাস্থ্য সেবা উন্নয়ন কমিটির সভায় এ আশ্বাস দেন সভার সভাপতি ও বরিশাল-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আবুল হাসানাত আবদুল্লাহসহ সংসদ সদস্য অ্যাডভোকেট তালুকদার মোহাম্মাদ ইউনুস, জেবুন্নেছা আফরোজ এবং শেখ মো. টিপু সুলতান।

তারা বলেন, ইতিমধ্যে যে সকল মেডিকেল কলেজ বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরীত হয়েছে সেগুলোর ন্যায় বরিশাল শের-ই বাংলা মেডিকেল কলেটি পুরাতন। কিন্তু এ কলেজকে এখন পর্যন্ত বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরীত করা হয়নি। বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তর করার সব ধরণের প্রস্তুতি এখানে আছে। তাই অচিরেই এই কলেজকে বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরীত করতে জাতীয় সংসদে জোর প্রস্তাব রাখা হবে।

সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বরিশাল বিভাগের সকল রোগীদের সুবিধার্থে আরও বেশ কয়েকটি যুগান্তকারী পদক্ষেপ হাতে নেয়া হয়। এর মধ্যে উল্লেখযোগ্য, স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী মো. নাসিম’র সম্মতি পেলে আগামী ২২ জুলাই হাসপাতালের আইসিইউ বিভাগ আনুষ্ঠানিক ভাবে চালু করা হবে। ওই দিন ১০ শয্যা ওই আইসিইউ ইউনিটি উদ্বোধনের প্রস্তুতি হাতে নেয়া হয়েছে।

সভায় নির্মাণাধীন ৭ম তলার নতুন ভবনটির কাজ আগামী এক থেকে দেড় বছরের মধ্যে শেষ করার নির্দেশ দেয়া হয় বরিশাল গণপূর্ত বিভাগকে।

সভায় সংসদ সদস্যরা আরও বলেন, গরীব ও সাধারণ রোগীদের পরীক্ষা নিরীক্ষার সকল যন্ত্রপাতি সচল রেখে রোগীদের সেবা নিশ্চিত করতে হবে। যে সমস্ত বিকল মেশিনারী রয়েছে সেগুলো মেরামত করতে হবে। একই সাথে হাসপাতালের ওষুধ থেকে শুরু করে মালামাল চুরি রোধে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নজদারী বৃদ্ধির নির্দেশ দেন। এছাড়া মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতা নিয়ে দ্রুত জনবল সংকট দূর করার আহ্বান জানানো হয়।

একইসাথে সেবাচিমের নির্মাণাধীন ৭ম তলার নতুন ভবনটির কাজ আগামী এক থেকে দেড় বছরের মধ্যে শেষ করার নির্দেশ দেয়া হয় বরিশাল গণপূর্ত বিভাগকে।

সভায় হাসপাতালের পরিচালক ডা. এসএম সিরাজুল ইসলাম, কলেজের অধ্যক্ষ অধ্যাপক ডা. ভাস্কার সাহা ও অতিরিক্ত ডিআইজি মো. আকরাম হোসেন ছাড়াও কলেজের অধ্যাপক, শিক্ষক, পুলিশ সুপার, পুলিশ কমিশনার, র‌্যাব-৮, গণপূর্ত এবং সমাজসেবা অধিদপ্তরের প্রতিনিধিরা উপস্থিত ছিলেন।”

 

15 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন