২২শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

সরকারি জমিতে ভবন নির্মাণে বাধা দেওয়ায় ভূমি সহকারী কর্মকর্তা লাঞ্ছিত

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট

প্রকাশিত: ০৬:১১ অপরাহ্ণ, ২৫ মার্চ ২০২৪

সরকারি জমিতে ভবন নির্মাণে বাধা দেওয়ায় ভূমি সহকারী কর্মকর্তা লাঞ্ছিত

নিজস্ব সংবাদদাতা, দৌলতখান:: ভোলার দৌলতখানে সরকারি জমি দখল করে বহুতল ভবন নির্মাণ করার অভিযোগ পাওয়া গেছে। অভিযুক্ত ব্যক্তির নাম নিজাম উদ্দিন। সরকারি জমিতে ভবন নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার কথা বলায় উপজেলার উত্তর জয়নগর ইউনিয়নের ভূমি সহকারী কর্মকর্তা সঞ্জিব কুমার দে কে লাঞ্ছিত করেন অভিযুক্ত নিজাম উদ্দিন। এসময় তার মোবাইল ফোন ভাংচুর করা হয়। রবিবার(২৫ মার্চ) উপজেলার উত্তর জয়নগর ইউনিয়নের বটতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিস্তি নিয়ন্ত্রণে আনে।

জানা যায়, প্রবাস ফেরত নিজাম উদ্দিন রাতারাতি অঢেল সম্পদের মালিক বনে গেছেন। এলাকায় রয়েছে তার নিজস্ব বাহিনী। তার ভয়ে মুখ খুলতে চায়না অনেকে। অর্থের জোর আর ক্ষমতার দাপট দেখিয়ে এভাবে সরকারি জমি দখলের অভিযোগ তার বিরুদ্ধে দীর্ঘদিনের। উত্তর জয়নগর ইউনিয়নের ভূমি সহকারী কর্মকর্তা সঞ্জিব কুমার দে জানান, সরকারি জমিতে ভবন নির্মাণের অভিযোগে তিনি ও সার্ভেয়ার সরেজমিনে গিয়ে নিজাম উদ্দিনকে নির্মাণ কাজ বন্ধ রাখার কথা বলেন। এসময় নিজাম উদ্দিন ক্ষিপ্ত হয়ে তাদের শাররিক লাঞ্ছিত করে এবং মোবাইল ভাঙচুর করে। ঘটনাটি উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মুন্নী ইসলামকে জানান তিনি।

স্থানীয়রা জানান, জেলার গুইগারহাটের পূর্ব পাশের খালটি বটতলা পর্যন্ত বিস্তৃত ছিল। শত বছরের পুরানো খালের জায়গা ভরাট করে নিজাম উদ্দিন পাকা ভবন নির্মাণ করেছেন। খালটি উপজেলার কৃষি কাজে ব্যাপক ভূমিকা রেখে আসছিলো। খালটি ভরাট করে ফেলায় বর্ষা মৌসুমে বিস্তীর্ণ এলাকা পানিতে তলিয়ে যায়।

এ ব্যাপারে ভবনের মালিক নিজাম উদ্দিন জানান, এখানে কোন সরকারি জমি নেই। তার নিজস্ব জায়গায় ভবন নির্মাণ করা হয়েছে। তবে লাঞ্ছিত করার বিষয়টি তিনি অস্বীকার করেন।

দৌলতখান উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পাঠান মো: সাইদুজ্জামান জানান, ঘটনাটি জানার সঙ্গে সঙ্গে উপজেলা সহকারী কমিশার ভূমিকে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।’

227 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন