২২শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, সোমবার

স্বতন্ত্র প্রার্থীকে ভোট দেওয়ায় বৃদ্ধ কৃষককে কোপালেন আ.লীগ নেতা

বরিশালটাইমস, ডেস্ক

প্রকাশিত: ০৮:১৫ অপরাহ্ণ, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪

স্বতন্ত্র প্রার্থীকে ভোট দেওয়ায় বৃদ্ধ কৃষককে কোপালেন আ.লীগ নেতা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বরিশাল: বাগমারায় স্বতন্ত্র প্রার্থীকে ভোট দেওয়ার অপরাধে বাসুপাড়া ইউনিয়নের বীরকয়া গ্রামের বৃদ্ধ কৃষক সামাদ আলীকে কুপিয়ে ও পিটিয়ে হাত-পা ভেঙে পঙ্গু করে দিয়েছেন বিজয়ী প্রার্থীর সমর্থক আওয়ামী লীগ নেতা জাবের আলী ও তার লোকজন।

এ ঘটনায় আহত কৃষকের ছেলে আশরাফুল ইসলাম বাদী হয়ে জাবের আলীসহ ১২ জনের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করায় ওই কৃষক পরিবারকে নির্বাচনের পর থেকে নিজ বাড়িতে উঠতে দেওয়া হয়নি। এছাড়া ওই কৃষকের পাঁচ বিঘা জমির বোরোখেতে গভীর নলকূপ থেকে সেচ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় একটি জিডি ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে লিখিত অভিযোগ দিয়েও কোনো প্রতিকার মেলেনি।

অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, সম্প্রতি অনুষ্ঠিত জাতীয় নির্বাচনে রাজশাহী-৪ (বাগমারা) আসনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইঞ্জিনিয়ার এনামুল হককে কাঁচি প্রতীকে ভোট দেন বীরকয়া গ্রামের কৃষক সামাদ আলী ও তার পরিবারের সদস্যরা। কিন্তু ওই আসনে বিজয়ী হন নৌকার প্রার্থী আবুল কালাম আজাদ। নির্বাচনের পর বাসুপাড়া ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সদস্য জাবের আলী ও তার লোকজন বৃদ্ধ কৃষক সামাদ আলীর কাছে ১০ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে।

চাঁদা দিতে রাজি না হওয়ায় হামলা চালিয়ে ঘরবাড়ি ভাঙচুর ও মারধর করে ওই কৃষক পরিবারকে গ্রাম থেকে তাড়িয়ে দেওয়া হয়। কয়েক দিন আগে কৃষক সামাদ আলী জমিতে হালচাষ দিতে গেলে তার জমিতে সেচ বন্ধ করে দিয়ে শ্যালোমেশিন ভেঙ্গে গুঁড়িয়ে দেওয়া হয় এবং ওই বৃদ্ধ কৃষককে কুপিয়ে ও পিটিয়ে তার হাত-পা ভেঙ্গে পঙ্গু করে দেওয়া হয়। বর্তমানে ওই কৃষক রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন রয়েছেন।

এ বিষয়ে জাবের আলী বলেন, শুধু তাকেই নয়, আরও কয়েকজন কৃষকের জমিতে সেচ বন্ধ করা হয়েছে। তবে কী কারণে করা হয়েছে, তা তারাই ভালো জানে। বাগমারা উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা উজ্জ্বল হোসেন বলেন, এ বিষয়ে একটি অভিযোগ পাওয়া গেছে। বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হবে। বাগমারা থানার ওসি অরবিন্দ সরকারও এ বিষয়ে জিডি হওয়ার কথা স্বীকার করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে জানিয়েছেন।

9 বার নিউজটি শেয়ার হয়েছে
  • ফেইসবুক শেয়ার করুন