পার্বত্য শান্তিচুক্তি বাস্তবায়ন ও পরিবীক্ষণ কমিটির মন্ত্রী পদমর্যায় আহ্বায়ক, বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সিনিয়র সদস্য, বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও জাতীয় সংসদের সাবেক চিফ হুইপ আবুল হাসানাত আবদুল্লাহ-এমপি’র সহধর্মীনি বাংলাদেশ আওয়ামী মহিলালীগের কেন্দ্রীয় কমিটির উপদেষ্টা, বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও ১৯৭৫ এর ১৫ই আগস্ট কালরাতের প্রত্যক্ষদর্শী, শহীদ জননী মুক্তিযোদ্ধা শাহান আরা বেগমের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করেছেন তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান-এমপি।

এক শোক বিবৃতিতে প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসান-এমপি মরহুমার বিদেহী আত্মার শান্তি ও মাগফেরাত কামনা করেন। পাশাপাশি তার শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানিয়ে বলেন, ‘একজন বিশিষ্ট নারী নেত্রী ছিলেন শাহান আরা বেগম। তাকে হারানোর শোক বরিশালবাসী তথা রাজনৈতিক অঙ্গনে এক শূণ্যতা সৃষ্টি করেছে। তাকে হারানোর এই শোক ভোলার মত নয়।

রোববার রাত সাড়ে ১১টায় রাজধানীর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালে শেষ নি.শ্বাস ত্যাগ করেন শহীদ জননী শাহান আরা বেগম। এরপর রাতে বঙ্গবন্ধু মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদ প্রাঙ্গনে তার প্রথম নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়।

ওই রাতেই তাকে নিয়ে বরিশালের উদ্দেশ্যে রওয়ানা হন পরিবারের সদস্যরা। বরিশালে পৌঁছালে সকাল সাড়ে ৮টায় নগরীর গোরাস্থান রোড মাদ্রাসায় দ্বিতীয় নামাজে জানাযা অনুষ্ঠিত হয়। এরপর রাষ্ট্রীয় সম্মাননা গার্ড অব অনার প্রদান শেষে মুসলিম গোরস্থানে দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে।’