বরিশাল নগরীর কাশীপুরে জেএসসি পরীক্ষার্থী মুহিম খন্দকারকে (১৪) ইয়াবা দিয়ে ফাঁসানো এবং থানায় নিয়ে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে এলাকাবাসী। সোমবার সকালে নগরীর কাশীপুর বাজারে স্থানীয় এলাকাবাসীর ব্যানারে এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধন চলাকালে নগরীর এয়ারপোর্ট থানা শাখা মানবধিকার কমিশন সভাপতি মুকুল মুখার্জী এবং ইমাম হোসেনসহ অন্যান্যরা বক্তব্য রাখেন।

তারা আরও বলেন, মুহিম খন্দকার নিরীহ কিশোর।

এলাকার শতভাগ মানুষ এ সত্যতা স্বীকার করেন। ওয়ার্ডের কাউন্সিলর ও গণ্যমান্য ব্যক্তিগণও থানায় গিয়ে ওই কিশোরের পক্ষে কথা বলেছে। অথচ পুলিশ সবকিছু উপেক্ষা করে তাকে থানায় নিয়ে অমানুষিক নির্যাতন করে একটি মনগড়া এজাহার লিখে আদালতে পাঠিয়েছে। এটা শিশু নির্যাতনের সামিল। বক্তারা অভিযুক্ত পুলিশ কর্মকর্তা এসআই এনামুল হকের বিরুদ্ধে ৪৮ ঘন্টার মধ্যে শাস্তিমূলক ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান।

গত শুক্রবার সন্ধ্যায় নগরীর পশ্চিম ইছাকাঠীতে বাড়ির সামনে থেকে মুহিম খন্দকারকে আটকের পর তাকে ইয়াবা দিয়ে ফাঁসিয়ে দেয়া হয় বলে অভিযোগ করেন স্থানীয়রা।